শুক্রবার, ২৩ অক্টোবর ২০২০, ০৭:৫০ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
মহাষষ্ঠীর মধ্য দিয়ে দুর্গাপূজোর মূল আনুষ্ঠানিকতা শুরু ঠাকুরগাঁওয়ে সংঘর্ষ এড়াতে দুর্গা মন্দিরে ১৪৪ ধারা জারি ডিবির অভিযানে ১৫০ বোতল ফেন্সিডিলসহ ঠাকুরগাঁওয়ে নারী মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার ঠাকুরগাঁওয়ে পুকুর থেকে শিশুর মরদেহ উদ্ধার! ঠাকুরগাঁওয়ে করোনার কারণে কর্মহীন হয়ে পড়া দরিদ্রদের মাঝে গরুর বাছুর বিতরণ ঠাকুরগাঁওয়ে মায়ের কবরে ছেলের লাশ উদ্ধার মামলায় গ্রেফতার ২ অভিনন্দন মোখলেছুর রহমান খান ভাসানী ডিআইজি হাবিবুর রহমান ও এএসপি এনায়েত করিমের যৌথ প্রচেষ্টায় কবরস্থান পেলো বেদে সম্প্রদায় ঠাকুরগাঁওয়ে ৭ দফা দাবিতে স্বতন্ত্র ইবতেদায়ী মাদ্রাসা শিক্ষক সমিতির মানববন্ধন পূজা মণ্ডপে সন্ধ্যায় আরতির পর প্রবেশ নিষেধ

ধর্ষণচেষ্টায় খাবারে ঘুমের ওষুধ, মা-মেয়েসহ অচেতন ৫

বাংলার আলো ডেস্ক
  • হালনাগাদ সময় : রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৪১ বার
আটক অভিযুক্ত জসীম হাওলাদার

ধর্ষণের উদ্দেশ্যে শনিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) রাতে খাবারের সঙ্গে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে দেয়ায় অচেতন হয়ে পড়েছে মা ও দুই মেয়েসহ একই পরিবারের ৫ জনকে। ঘটনায় জড়িত অভিযোগে আটক করা হয়েছে জসিম উদ্দিন (৪০) নামে একজনকে। ঘটনাটি ঘটেছে পটুয়াখালীর বাউফলের চন্দ্রদ্বীপের দক্ষিণচর ওয়াডেল গ্রামে। অসুস্থদের আজ রোববার সকালে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা গেছে, ওই গ্রামের জনৈক জেলে পরিবারটির বসতঘরে প্রবেশ করে রান্না করা রাতের খাবারের ঢাকনা উল্টে দেখেন জসিম হাওলাদার নামে এক ব্যক্তি। এ সময় গৃহকর্তার চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ুয়া ছোট মেয়ে (১৩) তা দেখে ফেলে এবং ঘরে আসার কারণ জানতে চাইলে- কি রান্না হয়েছে তা দেখতে এসেছি বলে চলে যায় জসিম।

এরপর আজ সকালে গৃহকর্তার বাবা-মা এসে পরিবারের সবাইকে অচেতন অবস্থায় পান। ডেকে আনেন স্থানীয়দের। এসময় অসুস্থ ওই তের বছরের মেয়েটি তাদের ঘরে জসিম হাওলাদারের প্রবেশ ও খাবারের সঙ্গে কোন কিছু মিশিয়ে থাকতে পারেন -এমনটা জানালে উপস্থিত লোকজন জসিম হাওলাদারকে আটক করে চাপ প্রয়োগ করেন এবং জসিম হাওলাদার রান্না করা খাবারে খাবারের সঙ্গে ঘুমের বড়ি মিশিয়ে দেয়ার কথা স্বীকার করেন।

এদিকে, খবর পেয়ে সকালেই বাড়ি ফেরেন মাছ শিকারে নদীতে থাকা গৃহকর্তা জেলে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে আটক করে থানায় নিয়ে যান অভিযুক্ত জসিম হাওলাদারকে। অন্যদিকে, সকালেই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয় অসুস্থদের। সেখানে গৃহকর্তৃ গৃহকত্রীসহ তার দুই মেয়ের জ্ঞান ফিরলেও এদিন বিকাল সাড়ে ৫টা পর্যন্ত জ্ঞান ফেরেনি অপর দুই জনের। সবার সুস্থ হতে কয়েকদিন সময় লাগবে বলেই জানিয়েছেন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক।

এ ব্যাপারে চন্দ্রদ্বীপের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বর ফারুক হোসেন জানান, খারাপ উদ্দেশ্য নিয়েই খাবারের সঙ্গে ঘুমের ওষুধ মিশিয়ে দেয়ার কথা স্বীকার করেছেন আটক জসিম হাওলাদার। তবে ঘুমের ওষুধ মেশানোর কথা স্বীকার করলেও ধর্ষণের উদ্দেশ্যে- কথাটি অস্বীকার করেছেন আটক জসিম হাওলাদার।

একজন খারাপ চরিত্রের লোক উল্লেখ করে আগেও আটক হওয়া জসিম হাওলাদার এ ধরণের ঘটনা ঘটিয়েছেন বলে জানান চন্দ্রদ্বিপ ইউপির চেয়ারম্যান এনামুল হক আলকাস মোল্লা।

এদিকে, জেলে পরিবারের অসুস্থদের সুস্থ্যতা ফিরলে তাদের বক্তব্য নিয়ে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানিয়েছেন বাউফল থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
১৭৮,৪৪৩
সুস্থ
৮৬,৪০৬
মৃত্যু
২,২৭৫

বিশ্বে

আক্রান্ত
৪১,৯৭৪,০০১
সুস্থ
৩১,১৮১,৮০১
মৃত্যু
১,১৪২,৬৪২
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত- বাংলার আলো বিডি
themesba-lates1749691102